Breaking News
Home / Uncategorized / স্ত্রীকে মারধর, বারণে জখম বাড়িওয়ালা: বদলগাছী

স্ত্রীকে মারধর, বারণে জখম বাড়িওয়ালা: বদলগাছী

[সারাদেশ, অপরাধ – আদালত ] বদলগাছীতে  স্ত্রীকে মারধর, বারণ করায় ভাড়াটিয়ার হাতে  জখম হলেন বাড়িওয়ালা!!



বিস্তারিতনওগাঁর বদলগাছীতে গ্রাম্য পশু চিকিৎসক স্বামী মেহেদী হাসানের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন তার স্ত্রী। এছাড়া ওই পশু চিকিৎসক অপর এক নারীর স্বামীকে হত্যার চেষ্টাও করেছেন। ওই ঘটনায়ও একটি মামলা হয়েছে।শুক্রবার গ্রেফতার মেহেদীকে জেলা হাজতে পাঠিয়েছে পুলিশ। মেহেদী হাসান বদলগাছী থানার গোপালপুর গ্রামের মকবুল হোসেনের ছেলে।

মেহেদী হাসান প্রথম বিয়ের কথা গোপন রেখে সাত মাস আগে জাকিয়া আক্তারকে বিয়ে করে এক লাখ টাকা যৌতুক নেয়। কিন্তু স্ত্রীকে বাড়িতে নিয়ে যায় না। বাড়িতে নেয়ার জন্য চাপ দিলে গত ২৫ মার্চ বদলগাছী থানার মথুরাপুর ইউপির গোবরচাপা বাজারে বাসা ভাড়া বাসায় স্ত্রীসহ ওঠেন মেহেদী।

আরো সংবাদ পড়ুন :

এরপর থেকেই আরো তিন লাখ টাকা যৌতুকের জন্য স্ত্রীকে শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন করতে থাকেন মেহেদী। বিষয়টি জানাজানি হলে বাড়িওয়ালা রিকো গত ১৯ মে তাদের ভালো হয়ে থাকার জন্য শাসায়, অন্যথায় বাসা ছেড়ে দিতে বলে। ওই দিন রাত ১০টায় মেহেদী তার স্ত্রীর কাছে পুনরায় তিন লাখ টাকা দাবি করে শারীরিক নির্যাতন শুরু করে। একপর্যায়ে রাত ২টার দিকে বাড়িওয়ালা রিকোর দরজায় ধাক্কা দেয় মেহেদী। বের হওয়া মাত্র রিকোকে কাপড় কাটার কাঁচি দিয়ে শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাত করে পালিয়ে যায় মেহেদী।



এ ঘটনায় ২২ মে বদলগাছী থানায় মেহেদীর স্ত্রী বাদী হয়ে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা করেন। পাশাপাশি রিকোর স্ত্রী নুরজাহান বেগম বাদী হয়ে তার স্বামীকে হত্যাচেষ্টার অভিযোগ এনে মেহেদীর বিরুদ্ধে আরো একটি মামলা করেন।
মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই আরিফ হোসেন জানান, মেহেদীর নামে আগের আরো দুটি মামলা রয়েছে। বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ৩টায় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে মেহেদীর প্রথম পক্ষের শ্বশুরবাড়ি আত্রাইয়ের বড়াইকুড়ি গ্রাম থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়।
বদলগাছী থানার ওসি চৌধুরী জোবায়ের আহাম্মদ বলেন, মেহেদীর বিরুদ্ধে তার স্ত্রী বাদী হয়ে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা করেছেন। তার বিরুদ্ধে মোট চারটি মামলা।
[নওগাঁ প্রতিনিধি]
error: Content is protected !!

Powered by themekiller.com