Breaking News
Home / News Headlines (Bangla) / ক্লিনিকের কর্মীর বদলে প্রক্সি দিচ্ছেন স্বামী

ক্লিনিকের কর্মীর বদলে প্রক্সি দিচ্ছেন স্বামী

    • Lভূরুঙ্গামারীতে কমিউনিটি ক্লিনিকের কর্মীর বদলে প্রক্সি দিচ্ছেন স্বামী জানেন না কর্তৃপক্ষ  – খালিদ হাসান (প্রধান সংবাদ নিয়ন্ত্রক এবং তথ্য দায়)




[ সারাদেশ ] ড়িগ্রামের ভূরুঙ্গামারীতে একটি কমিউনিটি ক্লিনিকে স্ত্রীর অসুস্হতার কারনে তার বদলে বিনা অনুমতিতে দায়িত্ব পালন করছেন স্বামী । কর্তৃপক্ষ বলছেন বিষয়টি তারা জানেন না। এ নিয়ে এলাকাবাসীর মধ্যে ক্ষোভ বিরাজ করছে।



সরেজমিনে গিয়ে দেখা গেছে উপজেলা ভূরুঙ্গামারী সদর ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডে অবস্থিত ভোটহাট কমিউনিটি ক্লিনিকটি দুপুর ১২টায় বন্ধ। এলাবাবাসী জানায় দায়িত্বপ্রাপ্ত সি.এইচ.সি.পি. হামিদা খাতুন, দীর্ঘ দেড় বছর যাবৎ মানসিক ভাবে অসুস্থ্য থাকায় তিনি ক্লিনিকের দায়িত্ব পালন করছেন না। তার বদলে তার স্বামী কামরুল ইসলাম বিনা অনুমতিতে ক্লিনিকে আসা যাওয়াসহ রোগী দেখা, ঔষধ পত্র ও যাবতীয় কাজ করে আসলেও বিষয়টি নজরে আসেনি উর্ধতন কর্তৃপক্ষের ।



এলাকাবাসীর অভিযোগ, দায়িত্ব প্রাপ্ত সি.এইচ.সি.পি. হামিদা খাতুনের স্বামী কামরুল ইসলামের ঔষধ ও রোগী দেখার কোন প্রশিক্ষণ না থাকলেও সে দীর্ঘদিন থেকে বিভিন্ন রোগের ঔষধ দিয়ে আসছে।



ক্লিনিক এলাকার মোজাম্মেল হক ও আজাহার আলী ক্ষোভের সঙ্গে বলেন, হামিদা খাতুন মানসিক ভাবে অসুস্থ্য থাকায় তার স্বামী কামরুল ইসলাম ক্লিনিকে বসে সর্বোচ্চ ১ ঘন্টা খোলা রাখে। ক্লিনিকে সেবা নিতে আসা রোগীদের সাথে খারাপ আচরণ করেন।



সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য শাহাজাহান আলী জানান, ক্লিনিকের দায়িত্বে থাকা সি.এইচ.সি.পি হামিদা খাতুন দীর্ঘ দিন থেকে মানষিক সমস্যায় ভুগছেন। তার বদলে স্বামী এই দায়িত্ব পালন করছে। প্রশিক্ষণহীন একজন ব্যক্তি কিভাবে বিভিন্ন রোগের ঔষধ গ্রামের লোকজনকে দিচ্ছেন?



এ বিষয়ে হামিদা খাতুন ও তার স্বামী কামরুল ইসলাম এর মোবাইলে বারবার যোগাযোগ করেও তাদের মোবাইল বন্ধ পাওয়ায় তাদের বক্তব্য পাওয়া যায়নি।



এ বিষয়ে উপজেলা স্বাস্থ্য ও প:প: কর্মকর্তা ডাঃ এ.এস.এম সায়েম বলেন, বিষয়টি আমার জানা নেই এলাকাবাসীর পক্ষেও সিএইচসিপি হামিদা খাতুনের বিরুদ্ধে কেউ অভিযোগ করেনি। তবে তিনি কোন অনিয়ম করে থাকলে তদন্ত পূর্বক তার বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

আরো সংবাদ পড়ুন :

error: Content is protected !!

Powered by themekiller.com